25.8 C
Rajbari
রবিবার, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২২
Homeরাজবাড়ীগোয়ালন্দে সরকারি স্বাস্থ‍্যসেবা কেন্দ্রের জমি দখলের চেষ্টা, বাঁধা দেওয়ায় কর্মচারীকে মারধর

গোয়ালন্দে সরকারি স্বাস্থ‍্যসেবা কেন্দ্রের জমি দখলের চেষ্টা, বাঁধা দেওয়ায় কর্মচারীকে মারধর

মো. সাজ্জাদ হোসেন-গোয়ালন্দ  প্রতিনিধি 
রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ঘাট কমিউনিটি ক্লিনিকের জমি অবৈধভাবে দখল চেষ্টা এবং এতে বাঁধা দেওয়ায় ক্লিনিকের কর্মচারীকে মারধর করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
জানা গেছে , রবিবার (৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০ টার দিকে দৌলতদিয়া ঘাট কমিউনিটি ক্লিনিকের সরকারি জমি অবৈধ ভাবে দখলের চেষ্টা করেন স্থানীয় ওষুধ ব্যাবসায়ী সাইফুল ইসলাম। তিনি ক্লিনিক সংলগ্ন তার ছাপড়া ঘরের সাথে ক্লিনিকের অনেকটা জমি অবৈধভাবে  দখল করে সেখানে জোর করে বারান্দা দেয়ার চেষ্টা করেন। এ সময় ক্লিনিকে উপস্হিত সিএইচসিপি জায়েদুল ইসলাম শাহীন ( ৩২) তাকে বাঁধা দিলে সাইফুল ইসলাম তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করেন।
 এ বিষয়ে জায়েদুল ইসলাম শাহীন বলেন, সাইফুল ইসলাম ইতিপূর্বে ক্লিনিকের একহাত জায়গা  দখল করে তার ওষুধের দোকান ঘর নির্মাণ করেন। আজকে আবার সে ক্লিনিকের অনেকটা জায়গা দখল করে তার ঘরের বারান্দা দিতে কাজ শুরু করে। আমি তার কাজে বাঁধা দিলে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে শারীরিক ভাবে লাঞ্চিত করেন। বিষয়টি আমি আমার উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের অবহিত করেছি।
ওষুধ ব্যাবসায়ী সাইফুল ইসলাম বলেন, জায়েদুল ইসলাম শাহিনের সাথে আমার কোনো মারামারির ঘটনা ঘটেনি। সে আমাকে একটা ধাক্কা দেয়। আমিও তাকে একটি ধাক্কা দিয়েছি। বারান্দা দেয়ার জায়গা হতে সব মালামাল সরিয়ে নিয়েছি।
হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. শাহ্ মুহাম্মাদ শরীফ বলেন, এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।
 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ সৈয়দ আমিরুল হক শামীম বলেন, অবৈধভাবে সরকারি জায়গা দখল করার চেষ্টা ও সরকারি কর্মচারিকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করার ঘটনাটি দুঃখজনক। এ ঘটনায় উপজেলার সকল সিএইচসিপি বিক্ষুব্ধ হয়ে কর্ম বিরতি দেয়ার কথা বলেছেন। আমি তাদেরকে ন্যায় বিচারের আশ্বাস দিয়ে থামিয়েছি।
গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার বলেন, অভিযোগ তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।
RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments