33.8 C
Rajbari
সোমবার, জুন ২৭, ২০২২
Homeরাজবাড়ীরঙিলা-৭  পিঁয়াজ চাষে লাভের মুখ দেখছে গোয়ালন্দের কৃষকরা

রঙিলা-৭  পিঁয়াজ চাষে লাভের মুখ দেখছে গোয়ালন্দের কৃষকরা

মো. সাজ্জাদ হোসেন-গোয়ালন্দ প্রতিনিধি। 
রঙ্গিলা-৭ জাতের হাইব্রিড জাতের পিয়াজ চাষে উন্নয়নের এক নতুন দিগন্ত খুলে গিয়াছে রাজবাড়ী জেলার গোয়ালন্দ উপজেলার  কৃষকদের সামনে৷
তারা লাভের মুখ দেখছে। দেশি পিয়াজের তুলনায় রঙিলা পিঁয়াজের ফলন চারগুণ বেশি। ঝাঁজ ও স্বাদ দেশি পিয়াজের মতই। চ্যাপ্টা গোলাকার ও আকর্ষণীয় তাম্র বর্ণ। সারা বছর স্থানীয়ভাবে সংরক্ষণ উপযোগী।
প্রতিটি পিঁয়াজের ওজন ৬০-১০০ গ্রাম। বিঘা প্রতি (৩৩শতাংশ) ফলন ২০০ মনেরও অধিক। দেশি পিঁয়াজের তুলনায় এ পিঁয়াজে লাভ বেশি।
এ জাতের পিয়াজ চাষাবাদে কৃষকরা যেমন লাভবান হবেন, তেমনি বিদেশ থেকে পিয়াজ আমদানির উপর প্রভাব কমবে। ইউনাইটেড সীড লিমিটেড সাভার তাদের নিজস্ব গবেষণায় এ জাতের পিঁয়াজ উদ্ভাবন করেছে। যা বাংলাদেশে এই প্রথম।
নতুন উদ্ভাবিত এ জাতের পিঁয়াজ সম্পর্কে মাঠ পর্যায়ের কৃষকদের ধারণা দিতে ও এ জাতের পিয়াজ বীজ চাষাবাদে উদ্বুদ্ধ করতে গোয়ালন্দের উজানচর স্থানীয় কৃষকদের নিয়ে কৃষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে।
রঙ্গিলা-৭ সিড লিমিটেড রাজবাড়ী আঞ্চলিক কার্যালয় বৃহস্পতিবার বিকালে উজানচরের মইজদ্দিন মোল্লা পাড়া গ্রামে এ মাঠ দিবসের আয়োজন করে।
ইউনাইটেড সিড সাভার লিমিটেডের কর্মকর্তা আমজাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জনাব খোকোনুজ্জামান।
 বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গোয়ালন্দ উপজেলা সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সোনিয়া আক্তার।
এ অনষ্ঠানে ইউনাইটেড সিডের পক্ষে বক্তব্যে আমজাদ হোসেন  নতুন জাতের এ পিয়াজ বীজের গুনাগুন সম্পর্কে স্থানীয় কৃষকদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেন।
এছাড়া স্থানীয় গোয়ালন্দ বাজারের আদদীন কৃষি ভন্ডারের মালিক ও রঙিলা-৭পিঁয়াজ বীজের ডিলার হুমায়ন আহমেদ রঙ্গিলা-৭ বীজ সম্পর্কে বক্তব্য তিনি বলেন,  শুরুতে শুধু পরিচিত কয়েকজনকে এই বীজ দিয়েছিলাম অন্যান্যরা ঝুঁকি নিতে চায়নি।
এছাড়াও এ সময় স্থানীয় অন্যান্য কৃষকরা এ পিয়াজের বীজের ব্যাপারে উৎসাহ দেখায় । স্থানীয় কৃষক রফিক মিয়া, আলাউদ্দিনসহ সবাই এই পিঁয়াজ চাষে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। কারন দেশি পিঁয়াজের চেয়ে এ পিঁয়াজের চারগুণ ফলন বেশি। সারা বছর স্থানীয়ভাবে সংরক্ষণ উপযোগী এ পিঁয়াজ চাষাবাদে কৃষকরা লাভবান হবেন।
পাশাপাশি বিদেশ থেকে পিঁয়াজ আমদানির ওপর প্রভাবও কমবে। অনুষ্ঠান শেষে কর্মকর্তারা কৃষকদের নিয়ে চরফরাদি গ্রামের কৃষক লাভলু মিয়ার পরীক্ষামূলক  রোপিত এ জাতের পিয়াজের প্রদর্শনী প্লট পরিদর্শন করেন।
RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments